খাদ্য-পুষ্টি ও জীবনযাত্রা

ওজন কমার ৬টি লক্ষণ

দেহের বাড়তি ওজন কমাতে দীর্ঘসময় লেগে থাকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। হাল না ছেড়ে খেয়াল করুন আপনার শরীরের দিকে।

কিছু শারীরিক লক্ষণ আছে যার মাধ্যমে আপনি বুঝবেন যে ওজন কমানোর পথে আপনি সঠিকভাবেই এগিয়ে যাচ্ছেন– 

১. মানসিক সুস্থতা বৃদ্ধি:

ওজন কমলে মানসিক সুস্থতার উন্নতি ঘটে। ২০১৩ সালের এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, যেসব ব্যক্তি ১ বছর ধরে ওজন কমানোর চেষ্টা করছেন,

ওজন কমার পর তাদের ডিপ্রেশন, উদ্বিগ্নতা কমে যায়। অপরদিকে প্রাণশক্তি, আত্মসংযম বেড়ে যায়। তবে ট্রমা (মানসিক আঘাত), অসুস্থতা কিংবা ডিভোর্স,

চাকরি চলে যাওয়ার মতো পরিস্থিতির কারণে ওজন কমে গেলে সেক্ষেত্রে এই মানসিক ব্যাপারগুলো কাজ নাও করতে পারে। 

২. আঁটোসাঁটো পোশাক গায়ে লাগা:

যেই কামিজ বা জিন্স গায়ে জড়াতে একপ্রকার যুদ্ধ করা লাগত তা এখন সহজেই পরতে পারছেন, যার অর্থ ওজন একটু হলেও কমেছে।

ওজন কমানোর যাত্রায় এই বিষয়টি বেশ মানসিক প্রশান্তি দেয়। ২০১৭ সালে করা এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, ৭৭% নারী ও ৩৬% পুরুষ দাবি করেছেন

যে পোশাক গায়ে ফিট হওয়া তাদেরকে ওজন কমানোর ক্ষেত্রে অনুপ্রেরণা দিয়েছে।

৩. শরীরের মাপে পরিবর্তন:

শরীরের বিভিন্ন অংশের, বিশেষত কোমরের মাপ কমার অর্থ আপনার ওজন কমেছে। এটি সুস্বাস্থ্যেরও একটি পরিমাপ। 

গবেষকরা ৪৩০ জন ব্যক্তির ২ বছরের ওজনের পরিবর্তন লক্ষ করে দেখেছেন, কোমরের মাপ কমার সঙ্গে সঙ্গে ব্লাড প্রেশার, ব্লাড সুগার, কোলেস্টেরলের মাত্রাও কমে আসে।

৪. শরীরের দীর্ঘস্থায়ী ব্যথা কমা:

ওজন কমলে দেহের যে অংশগুলো বেশি ভার বহন করে (বিশেষত পায়ের নিম্নাংশ, মেরুদণ্ডের শেষ অংশ) সেগুলোর ব্যথা কমে।

২০১৭ সালের এক গবেষণা অনুযায়ী, যেসব ব্যক্তিরা অন্তত ১০% ওজন কমিয়েছে তাদের দেহের ভার বহনকারী অংশের দীর্ঘস্থায়ী শারীরিক ব্যথা কমেছে।

আরেক গবেষণা বলছে, ২০% ওজন কমালে আর্থ্রাইটিস ও হাঁটুর ব্যথায় ভোগা ব্যক্তিদের ব্যথা কমে।

৫. রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকা:

রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখার একটি ভালো উপায় হলো স্বাস্থ্যকর ডায়েটে ওজন কমানো। আগের চেয়ে আপনার রক্তচাপ যদি কমে আসে তবে তা ওজন কমার ক্ষেত্রে ভালো ইঙ্গিত দিচ্ছে।

৬. কম নাক ডাকা:

বেশি ওজনের সঙ্গে নাক ডাকার সম্পর্ক রয়েছে। আপনার যদি এই সমস্যা থেকে থাকে এবং আগের চেয়ে বর্তমানে তার মাত্রা কমে তাহলে ধরে নিতে পারেন ওজন কমেছে।

ওজন কমানোর স্বল্পমেয়াদি কোনো পরিকল্পনা না করে দীর্ঘমেয়াদি ও স্বাস্থ্যকর পরিকল্পনা করুন। এতে ওজন কমার পাশাপাশি আপনি সুস্বাস্থ্যের অধিকারী হতে পারবেন।

তথ্যসূত্র:

১. https://www.healthline.com/health/weight-loss/signs-of-weight-loss#healthy-weight-loss

২. https://www.ncbi.nlm.nih.gov/pmc/articles/PMC4733266/

৩. https://pubmed.ncbi.nlm.nih.gov/28885942/

৪. https://www.ncbi.nlm.nih.gov/pmc/articles/PMC5337678/

৫. https://www.jpain.org/article/S1526-5900(17)30684-3/fulltext

৬. https://pubmed.ncbi.nlm.nih.gov/29911741/ 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

সম্পর্কিত পোস্ট

আরও আরও...আর পাওয়া যায়নি.