গর্ভকালীন সমস্যা ও স্ত্রী রোগ

প্রসবোত্তর বিষণ্ণতাকে প্রতিরোধ করার ৪টি টিপস

প্রসব পরবর্তী বিষণ্ণতা হতে পারে সদ্য প্রসূতি মা ও তার সন্তানের জন্য বিপজ্জনক। তাই নিজের এবং পরিবারের স্বার্থেই প্রসব পরবর্তী বিষণ্ণতায় আক্রান্ত হলে দ্রুত ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। প্রসবোত্তর বিষণ্ণতাকে প্রতিরোধে  নিচের এই চারটি টিপসও মেনে চলতে পারেন:

১. কথা বলুন

আপনি আপনার অনুভূতিগুলোকে নিজের মধ্যে না রেখে আপনার বিশ্বস্ত কারো সাথে ভাগাভাগি করে নিতে পারেন। তখন মনে হবে অন্যরা আপনার বিষয়গুলো শুনতে ইচ্ছুক এবংআপনি একা নন।

২. একা না থাকার চেষ্টা করুন 

একা না থেকে বরং পছন্দের মানুষগুলোর সাথে বেশি বেশি সময় কাটান। এটি আপনার একাকিত্ব দুর করে অন্যদের সংস্পর্শে যেতে সাহায্য করতে পারে।

বিভিন্ন ধরনের গ্রুপে যুক্ত হতে পারেন। একটি গ্রুপে থাকলে অন্যান্য বিষয়গুলোতে ফোকাস করতে হয় ফলে নিজের মানসিক চাপ এমনিতেই কিছুটা হালকা হয়ে যায়। নিজের বন্ধু- বান্ধবী কিংবা আত্মীয়স্বজনের সাথে বেশি সময় কাটান।

৩. নিজেকে জোর করে কাজে অন্তর্ভুক্ত করবেন না

আপনি যদি কাজ বা চাকরির জন্য প্রস্তুত না হন এখনই তবে নিজের ওপর জোর করবেন না। মনে রাখবেন এই সময়টা আপনার এবং আপনার শিশুর জন্য গুরুত্বপূর্ণ। তাই প্রয়োজনে আরো কিছুদিনের জন্য কাজ থেকে দূরে থাকার চেষ্টা করুন।  

৪. বিশ্রাম  করুন এবং শান্ত  থাকুন

মন ও শরীর উভয়কে ভালো রাখার জন্য রাতের  ঘুম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যদি আপনার শিশু অনেকক্ষণ জেগে থাকে তাহলে অন্য কাউকে দায়িত্ব দিন, যাতে আপনি পর্যাপ্ত ঘুমাতে পারেন। আপনার শিশুর যত্নের জন্যই আপনার যথেষ্ট বিশ্রাম প্রয়োজন। 

যেভাবেই হোক মনকে শান্ত করতে হবে। এমন কিছু করুন যা আপনার মানসিক চাপ ও উত্তেজনা কমাতে সাহায্য করতে পারে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

সম্পর্কিত পোস্ট

আরও আরও...আর পাওয়া যায়নি.