গর্ভকালীন সমস্যা ও স্ত্রী রোগ

কেন কারো কারো ক্ষেত্রে মেনোপজ আগে হয়ে যায়?

পিরিয়ড বন্ধ হওয়ার বয়সে পৌঁছানোর আগেই মাসিক একেবারে বন্ধ হয়ে যাওয়াকে বলে আর্লি মেনোপজ।

বেশ কয়েকটি পরিচিত কারণে আর্লি মেনোপজ হয়, তবে কখনো কখনো সঠিক কারণটি নির্ধারণ করা কঠিন হয়ে যায় বা করা সম্ভব হয় না। কারণগুলোর মধ্যে রয়েছে:

জেনেটিক গঠন
আর্লি মেনোপজ কারো কারো ক্ষেত্রে জেনেটিক গঠন বা উত্তরাধিকারসূত্রে প্রাপ্ত। এ অবস্থায় আপনার মা, বোন বা পরিবারের কখন মেনোপজ হয়েছে তা জেনে নিজেকে সেভাবে প্রস্তুত করাই শ্রেয়।

জীবনযাত্রার ধরণ
খাদ্যাভ্যাস, শরীরচর্চা এবং আপনার জীবনযাত্রার নানা অভ্যাসের কারণে হতে পারে আর্লি মেনোপজ।
দীর্ঘদিন বা নিয়মিত ধূমপান ইস্ট্রোজেন হরমোনে বিরূপ প্রভাব ফেলে যার ফলশ্রুতিতে তাড়াতাড়ি মেনোপজ ঘটে।
অন্যদিকে, যে নারীরা খুব পাতলা হন, তাদের সাধারণত কম ইস্ট্রোজেন থাকে এবং এই মজুদ দ্রুত শেষ হয়ে যেতে পারে। ইস্ট্রোজেন খুব কমে গেলেই মেনোপজ হয়ে যায়।

পর্যাপ্ত আমিষের অভাব, নিয়মিত শরীরচর্চার অভাব এবং সূর্যালোকের অভাবে সময়ের আগেই হতে পারে মেনোপজ। গবেষণায় দেখা গেছে যারা নিয়মিত নিরামিষ খাবার খেয়ে থাকে, ব্যায়ামের অভ্যাস নেই এবং সূর্যের আলোর সংস্পর্শে কম আসেন তাদের আর্লি মেনোপজের সম্ভাবনা বেশি থাকে।

ক্রোমোজোম সমস্যা
টার্নার সিন্ড্রোম, ফ্র্যাজাইল এক্স সিনড্রোমে, ইত্যাদি ক্রোমোজমের জটিলতায় আক্রান্ত নারীদের ডিম্বাশয় প্রত্যাশা অনুযায়ী কাজ করে না। ফলে আর্লি মেনোপজ হতে পারে।

অটোইমিউন রোগ
অটোইমিউন রোগে শরীর রোগ প্রতিরোধকারী ইমিউন সিস্টেম শরীরের বিভিন্ন অংশকে আক্রমণ করে প্রদাহ সৃষ্টি করে। এসব প্রদাহের জন্য ডিম্বাশয় কাজ করা বন্ধ করলে মেনোপজ শুরু হয়।

খিঁচুনি বা মৃগী রোগ

খিঁচুনি বা মৃগী রোগে আক্রান্ত নারীর ডিম্বাশয়ের অপ্রতুলতা রোগ হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে, যার কারণে মেনোপজ শুরু হতে পারে। আবার মেনোপজের কারণে হরমোনের মাত্রায় পরিবর্তন আসে যা খিঁচুনির ওপরেও প্রভাব ফেলে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

সম্পর্কিত পোস্ট

আরও আরও...আর পাওয়া যায়নি.